মন্তব্য পরিচালনা করা


এই টিউটোরিয়ালে, আপনি শিখবেন কিভাবে আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে পাঠকগণ মন্তব্যের মাধ্যমে যোগাযোগ করবে এবং কিভাবে আপনি সেই মন্তব্যগুলো পরিচালনা করবেন। 

শেখার ফলাফল

১. দুটি এডমিন অবস্থান চিহ্নিত করা যেখান থেকে মন্তব্যগুলো নিয়ন্ত্রণ করা যেতে পারে।
২. মন্তব্যের অবস্থা পরিবর্তন করা।

সম্পূরক প্রশ্ন

১. মন্তব্য সক্রিয় করার সুবিধাগুলো কি কি?
২. মন্তব্যগুলি কি আপনার সাইট এবং পরিচালনা শৈলীর সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ?
৩. কোন দুটি জায়গা থেকে আপনি আপনার মন্তব্যের অবস্থা পরিবর্তন করতে পারেন?
৪. মন্তব্য নিয়ন্ত্রণ করার জন্যে কমপক্ষে চারটি উপায় রয়েছে সেগুলো কি?

ট্রান্সক্রিপ্ট

লার্ন ওয়ার্ডপ্রেসে আপনাকে স্বাগতম। চলুন মন্তব্য পরিচালনা করার ব্যবস্থা নিয়ে কথা বলা যাক। সম্ভবত আপনি আগে বিভিন্ন ধরনের ওয়েব সাইটের মন্তব্যগুলো দেখেছেন। হতে পারে এটা একটা ভালো রিভিউ অথবা বাজে একটি মতামত অথবা সত্যিই এই দুইটা থেকে যেকোনো একটা। মন্তব্য হচ্ছে আপনার দর্শকদের সাথে মতামত আদান প্রদান শুরু করার, আপনার পোষ্টগুলোতে মতামত পাওয়ার, এবং আপনার পাঠকদের সম্পর্কে আরো বেশি কিছু জানার দুর্দান্ত একটা উপায়। আপনার সাইটের ম্যানেজার হিসেবে, আপনি কিভাবে মন্তব্যগুলো নিয়ন্ত্রণ করবেন সেই ব্যাপারে কিছু সিদ্ধান্ত নিতে হবে। তাই আমাদের এখানে লক্ষ্য হচ্ছে আপনাকে সেই সিদ্ধান্তগুলো নিতে সাহায্য করা: কোথায় আপনি মন্তব্যগুলো পরিবর্তন করতে পারবেন এবং কিভাবে সেগুলোর অবস্থা পরিবর্তন করবেন। যদি আমাকে অনুসরণ করতে চান, নিশ্চিত হয়ে নিন যে আপনার কাছে ওয়ার্ডপ্রেস সাইটের এডমিন এক্সেস এবং কিছু মন্তব্য রয়েছে নিয়ন্ত্রণ করার জন্যে। নির্দ্বিধায় আপনি ভিডিওটি থামিয়ে নিজে চেষ্টা করে দেখতে পারেন।

আপনি দেখবেন যে এখানে আমার ফুড ব্লগে দর্শকদের কিছু মন্তব্যের উদাহরণ রয়েছে। গতানুগতিকভাবে, মন্তব্যের সাথে তাদের নাম, ইমেইল এবং একটি ব্যক্তিগত ওয়েবসাইট রেখে যাওয়ার উপায় দর্শকদের কাছে রয়েছে। একটি ব্যাপারে আপনার সিদ্ধান্ত নিতে হবে, আপনি কি মন্তব্য ব্যবস্থা সক্রিয় রাখতে চান কিনা। কেউ মন্তব্য বন্ধ রাখতে পছন্দ করে এবং কেউ কিছু নির্দিষ্ট ব্লগ পোষ্টে চালু রাখতে চায়। এগুলো চালু রাখার ভালো এবং খারাপ দিক রয়েছে।

ভালো দিকগুলো হতে পারে এমন যে আপনি দর্শকদের সাথে কথোপকথন শুরু করতে পারেন, নতুন ধারণা পেতে পারেন দর্শকদের থেকে এবং তারা কি চাচ্ছে সেটা খুঁজে দেখতে পারেন। আমার ফুড ব্লগের মধ্যে, আমি সাধারণত আমার পোষ্ট শেষ করি দর্শকদের একটি প্রশ্ন জিজ্ঞেস করার মাধ্যমে, তাদের কোনো পরামর্শ রয়েছে কিনা অথবা তারা একটি নতুন রেসিপি কখন চেষ্টা করবে। তারা কিছু পরিবর্তন করেছে অথবা কিছু চেষ্টা করেছে আমি এটা শুনতে পছন্দ করি।

আমাদের যদিও খারাপ দিকগুলোর কথাও চিন্তা করতে হবে। যদি আপনি সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকেন আপনার সাইটে মন্তব্য সক্রিয় করবেন, শুধু মনে রাখবেন যে আপনার কিছু সিদ্ধান্ত নিতে হবে সেগুলো কিভাবে আপনি নিয়ন্ত্রণ করবেন। আপনার পছন্দ করতে হবে কোন ধরণের ভাষার অনুমোদন থাকবে, খারাপ আচরণগুলোর ক্ষেত্রে কি করবেন, এবং কতক্ষন সময় আপনি দিবেন মন্তব্যগুলো নিয়ন্ত্রণ করার জন্যে। এক মূহুর্ত সময় নিন এবং চিন্তা করে দেখুন, মন্তব্য ব্যবস্থা আপনার এবং সাইটের জন্যে উপযুক্ত কিনা। যদি আপনি সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকেন যে মন্তব্য সক্রিয় রাখবেন, তাহলে দেখতে থাকুন এবং আমরা কথা বলবো কিভাবে সেগুলো নিয়ন্ত্রণ করা যায়।

চলুন মন্তব্যের পৃষ্ঠাটি ঘেঁটে দেখা শুরু করি। আপনি মাত্রই আপনার ব্লগে প্রথম মন্তব্য পেলেন। পরবর্তী বিষয় আপনার যা করতে হবে তা হচ্ছে এটি খুঁজে বের করা এবং প্রকাশ করার অনুমতি দেওয়া। যেভাবে পেইজ এবং পোষ্ট নিয়ন্ত্রণ করা হয় এটিও সেরকমই দেখতে মনে হচ্ছে। আমি আমার ফুড ব্লগের ড্যাশবোর্ড থেকে শুরু করতে যাচ্ছি। বাম পাশের মন্তব্য বাটন থেকে শুরু করা যাক।

শুরু করার পূর্বে, আসুন ভালোভাবে দেখে নেওয়া যাক কিভাবে মন্তব্যগুলো সাজানো থাকে। আমাদের প্রতিটি মন্তব্যের সাথে সম্পর্কযুক্ত তথ্যের চারটি কলাম রয়েছে, লেখক, মন্তব্য, কিসের জবাবে এবং জমা দেওয়ার। লেখকের কলাম নির্দেশ করে, সাধারণ লেখকের ওয়েবসাইটের লিংক, তাদের ইমেইল ঠিকানা, এবং তাদের আইপি ঠিকানা যেখান থেকে মন্তব্য করা হয়েছে। মন্তব্যের কলামে, মন্তব্যের উপর হোভার করলে কিছু উল্লেখিত অপশন দেখা যাবে এটির নিচে যেমন: অনুমোদন বা অনুমোদন না করা, জবাব দেওয়া, দ্রুত এডিট করা, এডিট করা, স্প্যাম অথবা মুছে ফেলা। কিসের জবাবে মন্তব্য করা হয়েছে সেটি নির্দেশ করে একটি এডিট স্ক্রিন যেটি প্রকাশিত পোষ্ট অথবা পেজের দিকে নির্দেশ করে এবং একটি মন্তব্য গণনাকারী দেখায় যে প্রকাশিত পোষ্টে অথবা পেজে কতগুলো মন্তব্য রয়েছে। এবং পরিশেষে, জমা দেওয়ার কলামে তারিখ এবং সময় তালিকাকৃত থাকে যেটি দেখায় কখন মন্তব্য করা হয়েছে।

আপনি সব মন্তব্য মন্তব্যের পৃষ্ঠায় খুঁজে পাবেন, কিন্তু এটা দেখতে পারেন যে সেগুলো বিভিন্ন ফোল্ডারে রয়েছে। অনুমোদনের অপেক্ষায় থাকা মন্তব্যগুলো ঠিক এখানেই পাবেন এবং সেগুলো হলুদ রঙে হাইলাইট করা থাকবে। এখন এক মূহুর্ত সময় নিন এবং দেখুন আপনার সাইটে অনুমোদনের অপেক্ষায় থাকা কোনো মন্তব্য খুঁজে পান কিনা। মন্তব্যের জন্যে এভেইলেবল সমস্ত কার্যক্রম প্রতিটি মন্তব্যের নিচে হোভার লিঙ্কে রয়েছে। অথবা একসাথে অনেকগুলো কার্যক্রম হবে এটাও আমরা নির্বাচন করতে পারি। আমি আমার অনুমোদনের অপেক্ষায় থাকা মন্তব্যগুলোতে হোভার করতে পারি এবং অনুমোদনে ক্লিক করে অনুমোদন করতে পারি। এখন আপনার পালা। এগিয়ে যান এবং আপনার অনুমোদনের অপেক্ষায় থাকা মন্তব্যগুলোর জন্যে অনুমোদন অথবা স্প্যাম নির্বাচন করুন।

আমি যদি চাই একসাথে একাধিক মন্তব্য পরিবর্তন করতে পারি, আমি সবগুলো মন্তব্য একসাথে নির্বাচন করে, বাল্ক কার্যক্রমে যেয়ে সবগুলোর অনুমোদন বন্ধ করে এপ্লাই বাটনে চাপ দিতে পারি। এখন আপনি দেখবেন, সেই মন্তব্যগুলো আবার অনুমোদনের অপেক্ষায় থাকা ফোল্ডারে চলে গেছে। এখন সামনে যাওয়া যাক, তারপর এপ্রুভ এবং এপ্লাই করুন। আরেকটি উপায় রয়েছে আপনার কাছে আপনি দর্শকদের মন্তব্যের জবাব দিতে পারেন এবং কথোপকথন চালিয়ে যেতে পারেন। এখন আসুন অনুমোদিত মন্তব্যেগুলোতে যাওয়া যাক। এবং এখানে দেখুন। এলেথিয়া আমাকে একটি প্রশ্ন জিজ্ঞেস করছে। আপনি কি পাম্পকিন এর বীজগুলো রোষ্ট করেছেন? তাই এখন আমি সেখানে যেয়ে জবাব দিবো এবং বলবো হ্যাঁ করেছি এবং এপ্লাই বাটনে চাপ দিবো। এখন আপনার পালা। সামনে এগিয়ে যান এবং আপনার যেকোনো একটি মন্তব্যের জন্যে রিপ্লাইয়ে ক্লিক করুন। একটি ছোট জবাব দিতে পারেন হতে পারে তার মন্তব্যের জন্যে কোনো দর্শককে ধন্যবাদ দেওয়া অথবা কোনো প্রশ্নের জবাব দিতে পারেন।

আরো সুবিধাজনক স্থান, ড্যাশবোর্ড থেকে আসুন আমরা মন্তব্য নিয়ন্ত্রণ করার উপর লক্ষ্য করি। নিশ্চিত হয়ে নিন, আপনার কাছে কয়েকটি মন্তব্য রয়েছে নিয়ন্ত্রণ চর্চা করার জন্যে। সাম্প্রতিক কিছু মন্তব্যে যান এবং সেটার অনুমোদন বন্ধ করে দিন। এখন আপনি দেখতে পাবেন, এটি অনুমোদনের অপেক্ষায় থাকা ফোল্ডারে ফেরত গিয়েছে, এখন আমরা জানি এটা অনুমোদিত নয় কারণ হলুদ রঙের হাইলাইট অবস্থায় রয়েছে। উপরের বাম পাশের কোণায় থাকা বাটনে ক্লিক করে এখন ড্যাশবোর্ডে ফেরত যান। অনুমোদনের অপেক্ষায় থাকা যেকোনো মন্তব্য এখন এক্টিভিটি উইজেটে প্রদর্শিত থাকবে। আমরা যদি স্ক্রল করে আমাদের স্ক্রিনের নিচের দিকে যাই, তাহলে আমরা এক্টিভিটি উইজেটটি পাবো। এবং আমরা হলুদ রঙের অপেক্ষায় থাকা মন্তব্যটিও দেখতে পাবো। এখানে আপনি মন্তব্যগুলো উপর হোভার করলে একই অপশন গুলো খুঁজে পাবেন যেগুলো মন্তব্যের পাতায় দেখেছিলেন। তাই উদাহরণস্বরূপ, এখানেই এই স্ক্রীন থেকেই, আমি এথেলিয়ার মন্তব্যটির অনুমোদন দিতে পারবো। এখন আমি চাই আপনি ড্যাশবোর্ড থেকে মন্তব্য অপসারণ করার চর্চা করুন। আপনি এই কর্মশালায় পুর্বে রেখে যাওয়া যেকোনো একটি জবাবের উপর হোভার করতে পারেন এবং মুছে ফেলার জন্যে ক্লিক করতে পারেন। তবে আপনি সেটি রেখে দিতে চাইলে এখনই আতঙ্কিত হবার কোনো দরকার নেই। আপনি যেকোনো সময় সেটা ফেরত আনতে পারবেন আনডুতে ক্লিক করে। এবং এভাবেই আপনি মন্তব্যগুলোর নিয়ন্ত্রণ রাখতে পারেন এক্টিভিটি উইজেটের ড্যাশবোর্ড থেকেই।

এখন আপনি আপনার সাইটের মন্তব্য পরিচালনা করতে প্রস্তুত। learn.wordpress.org এর অন্যান্য কর্মশালাগুলো দেখতে ভুলবেন না। দেখা হবে সেখানে!

Workshop Details


Presenters

Roxy Kohilakis
@rkohilakis

I’m an instructional designer and audiologist. I’m sponsored by Automattic to contribute to the WordPress open-source project and Training Team.

Other Contributors

Sakib MD Nazmush